MysmsBD.ComLogin Sign Up

ভ্রমণে মূল্যবান জিনিসপত্র সাবধানে রাখুন!

In লাইফ স্টাইল - May 20 at 9:34am
ভ্রমণে মূল্যবান জিনিসপত্র সাবধানে রাখুন!

কাছে হোক অথবা দূরে, ভ্রমণে টাকা অথবা মূল্যবান জিনিসপত্র হারানোর অভিজ্ঞতা অনেকেরই আছে।

সাধারণত ঘুমিয়ে পড়লে অথবা অন্যমনষ্কতার কারণেই সুযোগ বুঝে চোর ব্যাটা এসব নিয়ে যায়? আর তাতে বেড়ানো তো মাটি হবেই, তার আগে হয়তো ভাবতে হবে বাড়ি ফিরবেন কিভাবে!

ঘটনা ঘটে যাওয়ার পর আহাজারি না করে বরং এমন উপায় বের করুন যাতে চোর কোন সুযোগই না পায়। আর মূল্যবান জিনিসের সুরক্ষার চিন্তা থেকে মুক্ত হয়ে আপনি নিশ্চিন্তে ঘুমিয়ে পড়তে পারেন প্লেন বা বাসের সিটে। জেনে নিই, কোথায় রাখবেন টাকা বা মূল্যবান অলংকার!

মানি বেল্টস
এটা টাকা লুকানোর বেশ পুরাতন একটি বুদ্ধি। সাধারণত একটা ব্যাগ বা থলের মতো হয়, যা কোমড়ে বেল্টের সাথে আটকানো থাকে। ব্যাগটিতে আপনি টাকা, পাসপোর্ট এবং ছোটখাট জিনিস রাখতে পারবেন। অনায়াসে জামার নিচে ফিট হয়ে যাবে এটি।

তবে সমস্যা হলো, আইডিয়াটি পুরাতন হওয়ায় চোর, ছিনতাইকারীদের কাছে পরিচিত হয়ে গেছে। অনেক ছিনতাইয়ের ঘটনায় দেখা গেছে শার্ট তুলে কোমড়ে বেল্ট পড়ে আছে কি না চেক করে ছিনতাইকারীরা।

ওয়েস্ট পাউচেস
এটা মানি বেল্টের মতোই একটা ব্যাগ। প্যান্টের বেল্টের সমান্তরালে থাকবে এটি। তবে ভেতরের দিকে। একদম পাতলা এই পাউচেসগুলো কিনতে পারেন, আবার নিজেও বানিয়ে নিতে পারেন।

তবে কেনার সুবিধা হলো, বেল্টটা ভালো হবে আর এটাতে এমন সিস্টেম থাকে যেতে আপনার ট্রাউজারের সাথে ঠিকমতো সেট হয়। ব্যাগটিতে অবশ্য অল্প কয়েকটি নোট রাখতে পারবেন, এর বেশি কিছু নয়।

নেক পাউচেস
ছোট একটি ব্যাগ, যা ঝুলবে আপনার গলায়, থাকবে শার্টের ভেতরে। এগুলো শার্ট বা টপের সাথে ভালো কাজে দেয় যেগুলোর গলার ডিজাইনটা লেগে থাকে গলার সাথেই। দুই রকম সাইজের পাওয়া নেক পাউচেস। একটা বড়, যার মধ্যে টাকা এবং পাসপোর্ট সবই ধরবে।

আরেকটা ছোট সাইজের যেখানে নিতে পারবেন শুধু টাকা। তবে এসব ব্যাগে অল্প জিনিস নেয়াই ভালো। শুধু সেই টাকা বা মূল্যবান জিনিস যা হারালে খুব সমস্যা হয়ে যাবে। কারণ যত জিনিস ঢোকাবেন তত ভারী হবে আপনার ব্যাগ। আর দেখাও যাবে তাহলে।

লেগ এবং আর্ম ওয়ালেট
পা এবং বাহুতে পাতলা ওয়ালেট ব্যবহার করতে পারেন। টাকাগুলো সোজা করে রাখবেন। এরকম ওয়ালেট খুব পাতলা হয়, তাই আর কিছু রাখা যাবে না। সেক্ষেত্রে একাধিক ওয়ালেট ব্যবহার করতে পারেন।

পাতলা কাপড়ের ওয়ালেটগুলো বেশি আরামদায়ক হবে। কারণ ওয়ালেট ভারি হলে পড়ে থাকতে অস্বস্তি তো হবেই, একই সাথে দেখা যাওয়ার সম্ভাবনাও থাকবে।

অ্যান্টি থেফট ওয়ালেট
মানিব্যাগ চুরি, পকেট কাটা এ ধরনের ঘটনা ঘটে হরহামেশাই। প্যান্টের পেছনের পকেট থেকে মানিব্যাগ হারানো গেছে এমন ঘটনার সম্মুখীন হননি সেটাই অস্বাভাবিক। কিছু কোম্পানি এ ধরনের পরিস্থিতি মোকাবেলার জন্যই তৈরি করেছে অ্যান্টি থেফট ওয়ালেট।

এইসব মানিব্যাগে একটা চিকন চেইন লাগানো থাকে। এই চেইনটি এমনভাবে প্যান্টের ভেতর দিয়ে আপনার বেল্টে লাগানো থাকবে যে বাইরে থেকে দেখা যাবে না। চেইনটি আটকানো যাবে বেল্টের সাথে বা ব্যাগের সাথে। এর দৈর্ঘ্য মাত্র কয়েক ইঞ্চি যাতে কেউ টান দিলেই টের পেয়ে যান আপনি।

নিজের মূল্যবান জিনিস সুরক্ষিত রাখতে নিজেই সচেতন হন। এ রকম সুরক্ষা পণ্য ক্রয় করুন বা বানিয়ে নিন। আর ভ্রমণ করুন নিশ্চিন্তে, নিরাপদে।

Googleplus Pint
Noyon Khan
Posts 3290
Post Views 98