MysmsBD.ComLogin Sign Up

[Trick] Uc Browser দিচ্ছে ৪০০০টাকা করে বিকাশে। বাংলাদেশ থেকে প্রথম থেকে ৪০০০ জন পাবে ৪০০০ টাকা করে ।

ড্রাগের সঙ্গে নাম জড়িয়েছে যে সব বলিউড তারকার

In বিবিধ বিনোদন - Nov 19 at 11:33pm
ড্রাগের সঙ্গে নাম জড়িয়েছে যে সব বলিউড তারকার

বলিউড তারকাদের নিয়ে নানা সময় নানা বিতর্ক দানা বেঁধেছে। তাঁদের বিরুদ্ধে কখনও কখনও উঠেছে আইনবিরুদ্ধ কাজ করার অভিযোগও। ভারতে ড্রাগ সেবন বা ড্রাগ বিক্রি নিষিদ্ধ। কিন্তু বলিউড তারকারা কখনও কখনও এই ধরনের কাজেও জড়িয়ে পড়েছেন। কারা সেই সব তারকা, যাঁরা এই ধরনের অভিযোগে অভিযুক্ত হয়েছেন? আসুন, জেনে নিন -

রণবীর কাপূর : রণবীর একটি সাক্ষাৎকারে নিজেই জানিয়েছিলেন নিজের ড্রাগ সেবন সংক্রান্ত তথ্য। তিনি বলেছিলেন, যৌবনে ফিল্ম স্কুলে ছাত্র থাকাকালীন তিনি মাদক নিতেন। পরবর্তীকালে ‘রকস্টার’ নামক ফিল্মে অভিনয়ের সময় চরিত্রটিকে যথাযথ ফুটিয়ে তোলার জন্য তিনি নাকি আবারও সাময়িকভাবে ড্রাগ সেবন করেছিলেন।

ফারদিন খান : ২০০১ সালে ফারদিন ড্রাগ কেনার অভিযোগে পু‌লিশের হাতে গ্রেফতার পর্যন্ত হয়েছিলেন। তাঁর কেনা ড্রাগের পরিমাণ অল্প ছিল, এবং তিনি প্রথমবার এই অভিযোগে অভিযুক্ত হয়েছেন বলেই তাঁর বিরুদ্ধে লঘু ধারায় মামলা দায়ের করেছিল পুলিশ। সেই কারণেই বেশি আইনি ঝামেলা পোহাতে হয়নি ফারদিনকে।

সুজান খান : হৃতিকের এই প্রাক্তন স্ত্রী-ও মাদকে আসক্ত বলে শোনা যায়। মুম্বইয়ের নানা গোপন পার্টিতে তাঁকে নিয়মিত দেখা যায়, যেসব পার্টিতে নাকি গোপনে ড্রাগ সেবন করা হয়ে থাকে‌। এমনকী, একথাও অনেক বলেন যে, হৃতিকের সঙ্গে সুজানের ডিভোর্সের একটা বড় কারণও নাকি সুজানের এই মাদকাসক্তি।

সঞ্জয় দত্ত : প্রথম জীবনে সঞ্জয় যে ড্রাগের নেশায় রীতিমতো আসক্ত ছিলেন, একথা সংবাদমাধ্যমে বহুবার আলোচিত হয়েছে। ১৯৮২ সালে মাদক সেবনের অভিযোগে তাঁর ৫ মাস জেল পর্যন্ত হয়েছিল। জেল থেকে মুক্তির পর বাবা সুনীল দত্ত ছেলেকে আমেরিকার একটি নেশামুক্তি কেন্দ্রে পাঠিয়ে দেন। সেখানে বেশ দীর্ঘ চিকিৎসার পর ড্রাগের নেশা থেকে মু্ক্তি পান তিনি।

বিজয় রাজ : ভাল অভিনেতা ও কমেডিয়ান হিসেবে বিজয় পরিচিত। ‘রান’ ফিল্মে কমিক রোলে তাঁর অভিনয় নজর কেড়েছিল অনেকেরই। কিন্তু বিজয়ও নিয়মিত ড্রাগ সেবন করেন বলে শোনা যায়। এমনকী ২০০৫ সালে দুবাই এয়ারপোর্টে ড্রাগ চালান করার অভিযোগে পুলিশ তাঁকে গ্রেফতার পর্যন্ত করেছিল বলে খবর।

অপূর্ব অগ্নিহোত্রী ও শিল্পা অগ্নিহোত্রী : টেলিভিশন তারকা ও বাস্তব জীবনের স্বামী-স্ত্রী অপূর্ব ও শিল্পা ২০১৩ সালে মুম্বইয়ের অদূরে একটি হোটেলে অনুষ্ঠিত একটি রেভ পার্টি থেকে গ্রেফতার হন। তাঁদের বিরুদ্ধে ড্রাগ সেবনের অভিযোগ ছিল।

গৌরী খান : তালিকায় এই শেষ নামটাই চমকে দেওয়ার মতো। শাহরুখ খানের স্ত্রী, গৌরী খান, যাঁকে বলিউডের ‘ফার্স্ট লেডি’ বলেন অনেকে, তিনিও একদা ড্রাগ চালানের অভিযোগে অভিযুক্ত হয়েছিলেন। বছর দু’য়েক আগে বার্লিন এয়ারপোর্টে ড্রাগ সমেত তিনি ধরা পড়েছিলেন বলে শোনা যায়। গৌরী অবশ্য পরবর্তীকালে এই সমস্ত অভিযোগই গুজব বলে উড়িয়ে দিয়েছেন।

সূত্রঃ কালেরকন্ঠ

[Trick] Uc Browser দিচ্ছে ৪০০০ টাকা করে বিকাশে। বাংলাদেশ থেকে প্রথম থেকে ৪০০০ জন পাবে ৪০০০ টাকা করে ।

Googleplus Pint
Mizu Ahmed
Posts 4036
Post Views 339