MysmsBD.ComLogin Sign Up

ওয়ানডে ক্রিকেটে ছক্কার রেকর্ডে শীর্ষ ১০ দেশের তালিকা প্রকাশ

In ক্রিকেট দুনিয়া - Nov 17 at 7:34am
ওয়ানডে ক্রিকেটে ছক্কার রেকর্ডে শীর্ষ ১০ দেশের তালিকা প্রকাশ

আধুনিক ক্রিকেটে ব্যাটসম্যানদের জন্য ছক্কা অথবা ওভার বাউন্ডারি একটি অতি সাধারণ বিষয়ে পরিণত হয়েছে। ব্যাটসম্যানদের আধিপত্য আরো বেড়েছে ক্রিকেটের সংক্ষিপ্ত ফরম্যাট টি টোয়েন্টি চালু হওয়ার পর।

তবে ক্রিকেট বলকে মাঠের বাইরে পাঠানো খুব একটা সহজ কাজ নয়। এর জন্য প্রয়োজন আলাদা স্কিল। ওভার বাউন্ডারি সংখ্যার দিক থেকে টেস্ট খেলুড়ে দেশগুলোর মধ্যে সবার থেকে এগিয়ে আছে ভারত। তাদের মোট ছক্কার সংখ্যা ২২৫২।

২১৬০ ওভার বাউন্ডারি নিয়ে দ্বিতীয়তে অবস্থান করছে ওয়েস্ট ইন্ডিজ। তৃতীয়তে ২১৩৬ ছক্কা নিয়ে পাকিস্তানের অবস্থান। দেখে নিন টেস্ট খেলুড়ে ১০ টি দেশের ওয়ানডে ক্রিকেটে ছক্কা মারার সংখ্যা-

১) ভারত-(২২৫২)

ছয় মারার তালিকায় সবার ওপরে রয়েছে ভারতীয় ক্রিকেট দল। মোট ৮৯৭টি ম্যাচে ভারতের ছয়ের সংখ্যা ২২৫২।

২) ওয়েস্ট ইন্ডিজ-(২১৬০)

তালিকার দুই নম্বরে আছে ওয়েস্ট ইন্ডিজ। ভিভ রিচার্ডস, রিচি রিচার্ডসন, ব্রায়ান লারা, ক্রিস গেইলের মতো ক্রিকেটাররা মিলে০. ৭৩৬টি ম্যাচ খেলে ক্যারিবিয়ানদের ছয়ের সংখ্যা ২১৬০।

৩) পাকিস্তান-(২১৩৬)

ছয় মারার দিক থেকে তিন নম্বরে রয়েছে পাকিস্তান। ৮৫৭টি ম্যাচ খেলে মোট ২১৩৬টি ওভারবাউন্ডারি মেরেছে শহীদ আফ্রিদির পাকিস্তান।

৪) অস্ট্রেলিয়া-(১৯৪৪)

ছয় মারার তালিকায় চতুর্থ অবস্থানে আছে বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন অস্ট্রেলিয়া। ৮৭৩টি ওয়ানডে ম্যাচে তাদের ছক্কার সংখ্যা ১৯৪৪টি।

৫) নিউজিল্যান্ড-(১৯১৮)

ওয়ানডে ক্রিকেটের অন্যতম আক্রমণত্মক দলের নাম নিউজিল্যান্ড। সবথেকে বেশি ছয় মারার তালিকায় তারা রয়েছে পাঁচ নম্বরে। মোট ৭০৩টি একদিনের ম্যাচ খেলে তাদের ছয়ের সংখ্যা ১৯১৮।

৬) দক্ষিণ আফ্রিকা-(১৪৭৯)

১৯৯১ সালে প্রথমবার ওয়ানডে ম্যাচ খেলতে নামা প্রোটিয়াদের ছয়ের সংখ্যা ১৪৭৯। তাঁরা খেলেছে মোট ৫৫৫টি একদিনের ম্যাচ।

৭) শ্রীলঙ্কা-(১৩৬৬)

একদিনের ক্রিকেটের অন্যতম সেরা দল হল শ্রীলঙ্কা। সাঙ্গাকারার দলের ৭৬৫টি ওয়ানডে ম্যাচে ছক্কার সংখ্যা ১৩৬৬টি।

৮) ইংল্যান্ড-(১৩১৫)

ক্রিকেটের উদ্ভাবক এই দেশটি ৬৬৪টি ওয়ানডে ম্যাচ খেলে ওভারবাউন্ডারি মেরেছে ১৩১৫টি।

৯) জিম্বাবুয়ে -(৯৮৪)

আফ্রিকার এই দেশটি ক্রিকেটের আঙিনায় উন্নতি ও অবনতি দু’টোই দেখেছে। মোট ৪৭২টি ম্যাচে তাঁদের ছয়ের সংখ্যা ৯৮৪।

১০) বাংলাদেশ-(৫৮৬)

ক্রিকেটের দুনিয়ায় খুব দ্রুতই উন্নতি করছে বাংলাদেশ। মোট ৩১২টি ম্যাচ খেলে সাকিব-তামিম-মুশফিকদের ছয়ের সংখ্যা ৫৮৬।

Googleplus Pint
Mizu Ahmed
Posts 4105
Post Views 738