MysmsBD.ComLogin Sign Up

আয়ু বৃদ্ধির ৫ মন্ত্র

In লাইফ স্টাইল - Nov 08 at 6:48pm
আয়ু বৃদ্ধির ৫ মন্ত্র

আধুনিক বিশ্বে মানুষ বিভিন্ন ধরনের ক্রনিক রোগে আক্রান্ত। এ হারটি দিন দিন বেড়েই চলেছে। ব্রিটেনের ৬০ শতাংশ মানুষ স্থূলতার দিকে এগিয়ে যাচ্ছেন। প্রায় ৭০ লাখ মানুষ হৃদরোগে ভুগছেন। প্রযুক্তির ব্যবহারের পারসোনাল হেলত বিষয়ে নজর দেওয়ার সুযোগ মিলেছে। এর মাধ্যমে পরামর্শও সহজে পাচ্ছে মানুষ। বিশেষজ্ঞ নিকোস অ্যানাস্টাসপোলাস জানান, স্বাস্থ্য বিষয়ক প্রযুক্তির ব্যবহারে জীবনে ছোটখাটো পরিবর্তন আনা যায়। বেশ কিছু কার্যকর পরিবর্তনের মাধ্যমেই দীর্ঘায়ু লাভ সম্ভব।

• এখানে জেনে নিন ৫টি উপায়ের কথা.....

১. স্বাস্থ্যকর ঘুম দিন : পরিপূর্ণ ঘুমের মাধ্যমে দেহ নিজেকে মেরামত করে নেয়। খাবার ও পানির মতো ঘুম বেঁচে থাকার অন্যতম শর্ত, বলেন বিশেষজ্ঞ অ্যানওয়েন ইভানস। সমাজ বা পরিবার বা কর্মজীবনের মতো প্রতিদিনের জীবনকে এগিয়ে ঘুম দিতে হবে। আধুনিক যুগে মানুষের মাঝে অবস্ট্রাক্টিভ স্লিপ অ্যাপিনা (ওএসএ) ক্রমশ বেড়ে চলা এক সমস্যা। এটি হৃদরোগ, টাইপ ২ ডায়াবেটিস এবং স্ট্রোকের ঝুঁকি বৃদ্ধি পায়। এসব সমস্যা থেকে মুক্তি মিলতে পারে যদি প্রতিরাতে ৮ ঘণ্টা ঘুমাতে পারেন।

২. পরিশ্রমী হোন : এর অর্থ এই নয় যে প্রতিদিন ব্যায়ামাগারে গিয়ে এক ঘণ্টা ঘাম ঝরাতে হবে। এ কাজটি মজার সঙ্গেও করা যায়। হাঁটা বা দৌড়ানোর মতো কাজই যথেষ্ট। প্রতিদিনের কাজের মাঝেও এসব করা যায়। অফিসে যাওয়ার সময় বেশ কিছু পথ হেঁটে যান। অফিসে লাঞ্চ বিরতির সময় হেঁটে আসুন।

৩. দূষণ এড়িয়ে চলুন : বিশেষ করে বায়ু দূষণ বড় সমস্যা হয়ে দাঁড়িয়েছে। গাড়ির ধোঁয়া থেকে দূরে বেঁচে চলুন। ধুলোবালিপূর্ণ পরিবেশে মুখে মাস্ক ব্যবহার করতে পারেন। বায়ু দূষণে ক্রনিক রেসপাইরেটরি ডিজিস, ফুসফুস ক্যান্সার এবং হৃদরোগের মতো রোগ হতে পারে। যেকোনো দূষণ এড়িয়ে চললে মৃত্যুঝুঁকি কমে আসবে। বাড়বে আয়ু।

৪. স্বাস্থ্যকর খাবার খান : দামি খাবার খেতে বলা হচ্ছে না। প্রকৃতির অনেক খাবার রয়েছে যার দাম অনেক কম। চর্বিযুক্ত মাছ, শীমের বিচি, বাদাম, সবজি বা শাক ইত্যাদি বেশি বেশি খেতে হবে। যেকোনো ডাল, শস্যদানা, আলু ইত্যাদি খাওয়ার পরিমাণ বাড়িয়ে দিন। এসব খাবারের প্রচুর পরিমাণে খনিজ ও পুষ্টি উপাদান রয়েছে যা আয়ু বৃদ্ধিতে সহায়তা করে।

৫. স্মার্ট যন্ত্রের মাধ্যমে পর্যবেক্ষণ করুন : এমন অনেক স্মার্ট যন্ত্র বাজারে ছড়িয়ে রয়েছে যার মাধ্যমে স্বাস্থ্য সংক্রান্ত তথ্য নিয়মিত নিতে পারেন। এদের ব্যবহার করুন। স্বাস্থ্যের যত্নে উৎসাহ মিলবে। হৃদস্পন্দন মাপা, পদক্ষেপ মাপা ইত্যাদি কাজের ডিভাইস আপনাকে আরো বেশি সচেতন করে তুলতে সহায়তা করবে।

Googleplus Pint
Anik Sutradhar
Posts 6981
Post Views 347