MysmsBD.ComLogin Sign Up

আটকে রেখে তরুণীকে দিয়ে দেহব্যবসা

In দেশের খবর - Sep 10 at 9:42pm
আটকে রেখে তরুণীকে দিয়ে দেহব্যবসা

নেত্রকোনার পূর্বধলা উপজেলায় জোরপূর্বক তুলে নিয়ে যাওয়ার সময় পাচারকারী চক্রের হাত থেকে এক তরুণীকে উদ্ধার করেছে স্থানীয়রা।

শনিবার উপজেলার জারিয়া রেলস্টেশন থেকে ওই তরুণীকে তুলে নিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে পাচারকারীরা।

এ সময় পাচারকারী ফতেমা এবং তার স্বামী আবুল কাশেমকে পূর্বধলা থানা পুলিশের হাতে সোর্পদ করেছে এলাকাবাসী। তাদের বাড়ি দুর্গাপুর উপজেলার পুকরাকান্দা গ্রামে।

জারিয়া রেল স্টেশন মাস্টার আব্দুল মোমেন জানান, সকালে স্টেশনে তরুণী (২২) ট্রেনে উঠার সময় পাচারকারী সদস্যদের সঙ্গে বাগবিতণ্ডা ও ধস্তাধস্তি শুরু হয়। তরুণীর চিৎকারে স্টেশনে অবস্থানরত যাত্রীরা এগিয়ে এসে তাকে উদ্ধার করে এবং পাচারকারী দলের দুই সদস্যকে আটক করে।

ওই তরুণীটি জানায়, মোবাইলফোনে যোগাযোগের মাধ্যমে মাহাবুব (৩০) নামের এক যুবক চাকরি দেয়ার কথা বলে রংপুরের হরিরামপুর এলাকা থেকে তাকে গাজীপুর সাইনবোর্ড বাজারে নিয়ে আসে। পরে মাহাবুব তাকে পাচারকারীর কাছে ১০ হাজার টাকায় বিক্রি করে দেয়।

পরে ফাতেমা তাকে দুর্গাপুরের চরে নিয়ে আসে। সেখানে একটি হোটেলের মতো ঘরে আটকে রেখে গত পাঁচ দিন ধরে পাচারকারী চক্রটি তাকে দিয়ে জোর পূর্বক দেহব্যবসা করাচ্ছিল।

এরপর ঢাকার নারায়নগঞ্জে বিক্রি করে দেয়ার খবর টের পেয়ে মেয়েটি কোনো রকমে সেখান থেকে পালিয়ে জারিয়া স্টেশনে আসে। পাচারকারী চক্রের মূল হোতা ফাতেমা ও তার স্বামী সেখান থেকে মেয়েটিকে পুনরায় ধরে নিয়ে যাওয়ার সময় স্থানীয়দের হাতে আটক হয়।

খবর পেয়ে নেত্রকোনার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার খান মোহাম্মদ আবু নাসেরের নির্দেশে পুলিশ গিয়ে দুজনকে আটক করে।

পূর্বধলা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আব্দুর রহমান বলেন, ভিকটিমসহ আটককৃতদের জিজ্ঞাসাবাদের জন্য নেত্রকোনা সার্কেল অফিসে পাঠানো হয়েছে।

তথ্যসূত্রঃ বিডি২৪লাইভ

Googleplus Pint
Anik Sutradhar
Posts 6704
Post Views 972