MysmsBD.ComLogin Sign Up

সাকিবের ঘূর্ণিতে জ্যামাইকা চ্যাম্পিয়ন

In ক্রিকেট দুনিয়া - Aug 08 at 9:44am
সাকিবের ঘূর্ণিতে জ্যামাইকা চ্যাম্পিয়ন

গায়ানা আমাজন ওয়ারিয়র্সকে ৯ উইকেটের বড় ব্যবধানে হারিয়ে ক্যারিবিয়ান প্রিমিয়ার লিগের শিরোপা জিতে নিয়েছে জ্যামাইকা তালাওয়াস।

রোববার সিপিএলের চতুর্থ আসরের ফাইনালে সেন্ট কিটসের স্টেডিয়ামে ইমাদ ওয়াসিম ও সাকিব আল হাসানের বোলিং ঘূর্ণিতে গায়ানা ৯৩ রানেই অলআউট হয়ে যায়।

সহজ টার্গেটে ব্যাট করতে নেমে মাত্র ১ উইকেট হারিয়েই লক্ষে পৌঁছে যায় জ্যামাইকা তালাওয়াস। ফলে ক্যারিবিয়ান প্রিমিয়ার লিগের চতুর্থ আসরে নিজেদের দ্বিতীয় শিরোপা শোকেসে তোলে জ্যামাইকা।

বল হাতে জ্যামাইকার ইমাদ ওয়াসিম ২১ রানে ৩টি ও সাকিব আল হাসান ২৫ রানে ২টি উইকেট নেন।

রোববার দিবাগত রাতে টস নামক ভাগ্য পরীক্ষায় হেরে যান রায়াদ এমরিত। টস হেরে ব্যাট করতে নামেন তারা। ১ রানের মাথায় আন্দ্রে রাসেলের বলে কুমার সাঙ্গাকারার হাতে ক্যাচ দিয়ে সাজঘরে ফেরেন নিক ম্যাডিনসন (০)।

৯ রানের মাথায় ক্রিস লিনকে (৭) নিজের প্রথম শিকারে পরিণত করেন সাকিব আল হাসান। তৃতীয় উইকেট জুটিতে সোহেল তানভীর ও ডোয়াইন স্মিথ মিলে ৪১ রান সংগ্রহ করেন।

কিন্তু দলীয় ৫০ রানের মাথায় ব্যক্তিগত ১৭ রানে স্মিথ থমাসের শিকারে পরিণত হন। ৫৩ রানের মাথায় সাকিবের ঘূর্ণিতে পরাস্ত হয়ে এলবিডব্লিউর শিকার হন জ্যাসন মোহাম্মদ (০)।

দলীয় ৭০ রানে বার্নওয়েল ও ব্রাম্বেল আউট হয়ে গেলে বড় সংগ্রহের সম্ভাবনা শেষ হয়ে যায়। এরপর ৮৩ রানে সপ্তম, ৯১ রানে অষ্টম ও নবম উইকেটের পতন ঘটে। ৯৩ রানের মাথায় অ্যাডাম জাম্বা রান আউটে কাটা পড়লে গায়ানা আমাজানের ইনিংসের যবনিকাপাত ঘটে।

ব্যাট হাতে সোহেল তানভীর সর্বোচ্চ ৪২ রান করেন। ৩৭ বলে খেলা এই ইনিংসে ৬টি চারের মার থাকলেও কোনো ছক্কার মার ছিল না। দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ১৭ রান আসে স্টিভেন স্মিথের ব্যাট থেকে। ১০ রান করেন বার্নওয়েল। বাকিদের কেউ দুই অঙ্কের কোটা ছুঁতে পারেনি।

বল হাতে জ্যামাইকার ইমাদ ওয়াসিম ৩টি উইকেট নেন। সাকিব ও কেসরিক উইলিয়াম ২টি করে উইকেট নেন। আর ১টি করে উইকেট শিকার করেন আন্দ্রে রাসেল ও ওসানে থমাস।

৯৪ রানের জয়ের লক্ষে ব্যাট করতে নেমে চাঁদউইক ওয়ালটন ও ক্রিস গেইল মিলে উদ্বোধনী জুটিতে ৭৯ রান সংগ্রহ করেন। জয়ের দ্বারপ্রান্তে দলকে নিয়ে গিয়ে ২৭ বলে ৩ চার ও ৬ ছক্কায় ৫৪ রান করে আউট হন ক্রিস গেইল। এরপর ওয়ালটন ও কুমার সাঙ্গাকারা মিলে দলকে জিতিয়ে মাঠ ছাড়েন। ওয়ালটন ২৫ ও সাঙ্গাকারা ১২ রানে অপরাজিত থাকেন।

ম্যাচসেরা নির্বাচিত হন ইমাদ ওয়াসিম। আর সিরিজ সেরা হন আন্দ্রে রাসেল।

উল্লেখ্য, ২০১৩ সালে এই গায়ানাকেই হারিয়ে সিপিএলের প্রথম শিরোপা জিতেছিল জ্যামাইকা তালাওয়াস। এবার তাদের হারিয়ে দ্বিতীয় শিরোপা জিতল জ্যামাইকা।

তথ্যসূত্রঃ রাইজিংবিডি

Googleplus Pint
Anik Sutradhar
Posts 7053
Post Views 436