MysmsBD.ComLogin Sign Up

দুই উপায়ে তৈলাক্ত ত্বকের ব্রণ দূর

In রূপচর্চা/বিউটি-টিপস - Aug 02 at 2:23pm
দুই উপায়ে তৈলাক্ত ত্বকের ব্রণ দূর

ব্রণ তৈলাক্ত ত্বকের অধিকারী নারীদের জন্য সবচেয়ে ভয়াবহ সমস্যা, যা প্রতিনিয়ত লেগেই থাকে। ত্বক তৈলাক্ত হয়ে থাকলে আপনি এই কষ্ট হাড়ে হাড়ে চেনেন। গ্রীষ্ম, বর্ষা, শীত—যেকোনো ঋতুতে কিংবা অতিরিক্ত ধুলোবালি, ঘাম, শুষ্কতা সবকিছুর প্রভাবে আপনার ত্বকে প্রায় সারা বছর ব্রণ লেগেই থাকে। এ সমস্যা থেকে পরিত্রাণ পেতে নিচে দুটি সহজ ঘরোয়া প্যাক ব্যবহারের পরামর্শ দেওয়া হয়েছে।

• চলুন, ঝটপট জেনে নিই কী করতে হবে....

→ পদ্ধতি-১

লেবুর রস ও মধুর প্যাক
লেবুতে সাইট্রিক এসিড নামে এমন একটি উপাদান আছে, যা ত্বকের অতিরিক্ত তেল দূর করে ব্রণের সমস্যা অনেকাংশে কমিয়ে আনতে সাহায্য করে। এ ছাড়া লেবুর রস ত্বকের ক্ষতিকারক ব্যাকটেরিয়া ধ্বংস করে এবং ত্বকের বিভিন্ন দাগ দূর করতে বেশ কার্যকর। আর মধু হলো একটি প্রাকৃতিক উপাদান, যা ত্বকের ভেতর থেকে আর্দ্রতা ধরে রাখে। ব্রণ সমস্যা দূর করার পাশাপাশি ত্বকের প্রাকৃতিক উজ্জ্বলতাও বৃদ্ধি করে।

যেভাবে ব্যবহার করবেন
একটি পরিষ্কার পাত্রে এক চামচ লেবুর রস ও সমপরিমাণ মধু নিন। একসঙ্গে ভালো করে মিশিয়ে ঘন পেস্ট তৈরি করুন। প্রথমে পানি দিয়ে মুখ ধুয়ে নিন এবং তার পর মুখ ও ঘাড়ের অংশে পেস্টটি লাগিয়ে নিন। কটন বল ব্যবহার করতে পারেন মিশ্রণটি লাগাতে। ১৫ থেকে ২০ ঘণ্টা রেখে ঠান্ডা পানি দিয়ে মুখ ও ঘাড় ধুয়ে ফেলুন। প্রতিদিন ব্যবহারে দ্রুত ও কার্যকর ফল পাবেন।


→ পদ্ধতি-২

বেসন ও টক দইয়ের প্যাক
বেসন ও টক দই, দুটি উপাদানই আপনি খুব সহজে হাতের কাছে পাবেন। বেসনে প্রচুর পরিমাণ প্রোটিন ও ভিটামিন আছে, যা তৈলাক্ত ত্বকের অতিরিক্ত তেল শোষণ করে ত্বককে আরো উজ্জ্বল ও দ্যুতিময় করে। টক দইয়ে আছে ভিটামিন এ ও সি, যা ব্রণ দূর করার পাশাপাশি ত্বককে প্রাকৃতিকভাবে নরম ও মসৃণ করতে সাহায্য করে।

যেভাবে ব্যবহার করবেন
একটি পাত্রে দুই চা চামচ বেসন ও এক চা চামচ টক দই নিন এবং ভালো করে নাড়ুন। মিশ্রণটিতে দুই ফোঁটা লেবুর রস ও এক চিমটি হলুদ গুঁড়া দিন। তার পর তৈরি করা মিশ্রণটি মুখ ও ঘাড়ে লাগিয়ে শুকানো পর্যন্ত অপেক্ষা করুন। ২০-৩০ মিনিট পর হালকা উষ্ণ পানির ঝাপটা দিয়ে শুকিয়ে যাওয়া প্যাকটি ভিজিয়ে নিন। আলতোভাবে ঘষে ধীরে ধীরে প্যাকটি উঠিয়ে নিন, যাতে আপনার ত্বকে জমে থাকা মৃত কোষগুলো দূর হয়ে যায়। সবশেষে ঠান্ডা পানি দিয়ে পুরো মুখ ও ঘাড় ধুয়ে নিন। সপ্তাহে অন্তত দুবার ব্যবহার করুন। তবে ব্রণ কমে এলে ১৫ দিন পরপর ব্যবহার করতে পারেন।

Googleplus Pint
Anik Sutradhar
Posts 7067
Post Views 389