MysmsBD.ComLogin Sign Up

এবারের ঈদে চমকে ভরা ‘ইত্যাদি’, জেনে নিন যা যা থাকছে

In টিভিতে অনুষ্ঠান - Jun 30 at 1:21pm
এবারের ঈদে চমকে ভরা ‘ইত্যাদি’, জেনে নিন যা যা থাকছে

আবহমান গ্রাম-বাংলার অত্যন্ত জনপ্রিয় ম্যাগাজিন অনুষ্ঠান ‘ইত্যাদি’। বাংলাদেশের বিনোদনমূলক অনুষ্ঠানের ইতিহাসে হানিফ সঙ্কেতের গ্রন্থনা ও উপস্থাপনা প্রচারিত ‘ইত্যাদি’র মত এতটা জনপ্রিয় আর কোন অনুষ্ঠানই হয়নি।

বর্তমানেও এই অনুষ্ঠানটির জনপ্রিয়তা এতটুকু ম্লান হয়নি। বরং আরও ব্যাপকতা বেড়েছে এর জনপ্রিতায়। যারা নিয়মিত বিটিভি দেখেন না। বা বিটিভি ব্যক্তিগতভাবে পছন্দও করেন না। সেই তারাও কিন্তু ‘ইত্যাদি’র জন্য নব ঘুরিয়ে বিটিভির পর্দায় চোখ রাখেন।

জনপ্রিয় এই অনুষ্ঠানটি এবার ঈদের ব্যাপক চমক নিয়েই দর্শকদের সামনে হাজির হচ্ছে। ঈদ আনন্দের সঙ্গে বাড়তি আনন্দ যোগ করবে হাসিফ সংকেতের জনপ্রিয় ম্যাগাজিন অনুষ্ঠান ‘ইত্যাদি’। এবারের অনুষ্ঠান ধারণ করা হয়েছে মিরপুর শহীদ সোহ্‌রাওয়ার্দী ইনডোর স্টেডিয়ামে। বরাবরের মতো একটি বিশাল সেটে কয়েক হাজার দর্শকের উপস্থিতিতে ধারণ করা হয় অনুষ্ঠানটি।

বরাবরের মতো ‘ইত্যাদি’ শুরু করা হয়েছে ‘ও মন রমজানের ওই রোজার শেষে এলো খুশির ঈদ’ গানটি দিয়ে। গান এক হলেও প্রতিবারের মতো রয়েছে শিল্পী নির্বাচন এবং চিত্রায়ণে বৈচিত্র্য। গানটিতে অংশ নিয়েছেন ‘ইত্যাদি’তে প্রদর্শিত ব্রাহ্মণবাড়িয়ার দৃষ্টি প্রতিবন্ধী হেলাল মিয়ার শিল্পী পরিবার এবং তাদের নেতৃত্বে আরো শতাধিক দৃষ্টি প্রতিবন্ধী শিল্পী।

এবারের ঈদ ‘ইত্যাদি’তে একটি দেশাত্মবোধক গান গেয়েছেন এ্যান্ড্রু কিশোর। গানটি তৈরি করা হয়েছে নারী নির্যাতন, তরুণদের মূল্যবোধ ও শিশু অধিকার নিয়ে। গানটির প্রথম দু’লাইন হচ্ছে- ‘আমাদের ভালোবাসা, আমাদের দেশ-আমাদের ভালোবাসা, সুখী পরিবেশ...’। এটি লিখেছেন মোহাম্মদ রফিকউজ্জামান এবং সুর করেছেন আলী আকবর রূপু। গানটির চিত্রায়ণে এ্যান্ড্রু কিশোরের সঙ্গে কোরিওগ্রাফি করেছেন ঢাকা ক্যান্ট. গার্লস পাবলিক স্কুল অ্যান্ড কলেজের শতাধিক শিক্ষার্থী।

এবারের আয়োজনের একটি বিশেষ পর্ব হচ্ছে ৪ মিনিটের নাটক। যেখানে দেখা যাবে ভিনগ্রহের তিন মানবের এই পৃথিবী নামক গ্রহে আগমন ও ভিন্ন অভিজ্ঞতা নিয়ে ফিরে যাওয়া। ব্যতিক্রমী এই নাট্যাংশে অংশ নিয়েছেন অভিনেতা ও পরিচালক শহীদুজ্জামান সেলিম, মীর সাব্বির এবং মডেল-অভিনেতা ইমন এবং একটি বিশেষ চরিত্রে জনপ্রিয় চিত্রনায়ক আলমগীর।

প্রতি ঈদের মতো এবারের ‘ইত্যাদি’তেও একটি ভিন্ন আঙ্গিকের নাচের আয়োজন রয়েছে। আর এতে অংশ নিয়েছেন বিনোদন অঙ্গনের চার তারকা চিত্রনায়ক ফেরদৌস, চিত্রনায়িকা পূর্ণিমা, মডেল অভিনেতা নোবেল ও অভিনেত্রী অপি করিম। তাদের সঙ্গে রয়েছেন প্রায় অর্ধশত নৃত্যশিল্পী। নৃত্য পরিচালনা করেছেন ওয়াসেক।

ঈদ ‘ইত্যাদি’র নানান চমকের একটি হচ্ছে বিশেষ মিউজিক্যাল ড্রামা। ঈদের ছুটিতে বাড়িতে যাওয়ার বিড়ম্বনা এবং টেলিভিশনের মতো আমাদের দৈনন্দিন জীবনে রিমোটের প্রয়োজনীয়তা নিয়ে দুটি ভিন্ন ভিন্ন মিউজিক্যাল ড্রামা করা হয়। একটিতে অভিনয় করেছেন জনপ্রিয় অভিনয় তারকা চঞ্চল চৌধুরী আর একটিতে অভিনেতা সাইদ বাবু। সঙ্গে আরো অভিনয় করেছেন আবদুল আজিজ, কাজী আসাদ, সুব্রত, রতন খান, রকিবুল আলম ও মুকুল সিরাজসহ আরো অনেকে।

বরাবরের মতো বিদেশিদের নিয়ে এবারও রয়েছে একটি ব্যতিক্রমী আয়োজন। এই পর্বটিতে নানা দেশের অর্ধশতাধিক বিদেশি নাগরিক অংশ নিয়েছেন। আর এবারের বিষয়বস্তু বাল্যবিবাহ। প্রতি ঈদের মতো এবারও রয়েছে ব্যাপক আয়োজনে বিষয়ভিত্তিক দলীয় সংগীত। সাম্প্রতিক সময়ে আলোচিত কিছু বিষয় নিয়ে তৈরি এ আয়োজনে অংশ নিয়েছেন ‘ইত্যাদি’র নিয়মিত নৃত্যশিল্পীরা। এই পর্বের নৃত্য পরিচালনা করেছেন মামুন।

এবার দর্শক পর্বে চার নির্বাচিত দর্শকের সঙ্গে পরবর্তী পর্বে অংশ নিয়েছেন ফোক সম্রাজ্ঞী মমতাজ। তবে এবার ইত্যাদির দর্শকরা তাকে দেখবেন ভিন্নরূপে। গান নয়, অভিনয়ে। রয়েছে চার দৃষ্টি প্রতিবন্ধী বোনের ঈদ উদযাপন নিয়ে একটি বিশেষ প্রতিবেদন।

এছাড়া নিয়মিত মামা-ভাগ্নে, নানী-নাতি পর্বের পাশাপাশি ঈদকে ঘিরে রয়েছে ডজনখানেক বিদ্রূপাত্মক রসালো নাট্যাংশ। এসবের মধ্যে থাকছে সেলফি ভাইরাস ও সাবধানতা, ফেসবুকের লোড, ঈদের অনুষ্ঠান ও বাহারি পরিকল্পনা, দোরগোড়ায় ঈদের রান্না, মূল্যহ্রাস না মূল্যফাঁস, গানে গানে রোগীর চিকিৎসাসহ বিভিন্ন বিষয়ে আরো কয়েকটি নাট্যাংশ।

Googleplus Pint
Md Sobuj Ahmed
Posts 217
Post Views 681